মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯, ০৩:৩৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
মাধবপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবকের আত্মহত্যা রাজনগরে বখাটে কতৃক কলেজছাত্রীকে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় মানববন্ধন মৌলভীবাজারে শিক্ষানবীশ আইনজীবী কল্যাণ পরিষদের মানববন্ধন কুলাউড়া আওয়ামী লীগের কাউন্সিল, সভাপতি রেনু ও সাধারণ সম্পাদক কামরুল মৌলভীবাজারের রাজনগরে ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থী ধর্ষণের অনুসন্ধানী প্রতিবেদন।। বাড়ির মালিক জামাল মিয়া আটক।। দোষীদের গ্রেপ্তারের দাবীতে বৃহস্পতিবার স্কুল শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন সৈয়দপুরে প্রাইভেট কারের ধাক্কায় মহিলা নিহত, আহত ১ চুনারঘাটে বিষপানে যুবকের মৃত্যু ‘মিলাদুন্নবীর উছিলায় আল্লাহ তা’আলা ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষয়ক্ষতি কমিয়েছেন’ বিএনপির ১০ হাজার নেতাকর্মীর পদত্যাগের আল্টিমেটাম আসছে টাকার ওপর ঘুমিয়ে থাকা সেই এসআই ক্লোজড
হামলার জন্য ছাত্রলীগের প্রতি জাবি ভিসির কৃতজ্ঞতা

হামলার জন্য ছাত্রলীগের প্রতি জাবি ভিসির কৃতজ্ঞতা

চেকপোষ্ট ডেস্কঃ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) উপাচার্যের বাসভবনের সামনে আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালিয়ে তাকে ‘মুক্ত’ করায় এ জন্য শাখা ছাত্রলীগের প্রতি বিশেষভাবে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ভিসি ফারজানা ইসলাম। একই সঙ্গে শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।

মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন প্রশাসনিক ভবনের কনফারেন্স রুমে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে এ কথা বলেন উপাচার্য।

তিনি এসময় বলেন, ‘একটা মিথ্যা অভিযোগের ভিত্তিতে আমাকে অসম্মান ও অপদস্থ করেছে আন্দোলনকারীরা। কিন্তু এটা করা হয়েছে কোনও প্রমাণ ছাড়াই। যদি কোনও প্রমাণ থাকে, যদি প্রমাণ পায়, তাহলে যা বিচার হবে তা মেনে নেব।’

তিনি আরও বলেন, ‘সংবাদমাধ্যমকে তারা অনবরত মিথ্যা তথ্য দিয়েছে, মিথ্যা বলেছে। দেশের একটা জাগরণের সুযোগ এসেছে যে আমরা সত্য কথা বলার সুযোগ পাব কিনা। আজ মানুষের জেগে ওঠা আমরা দেখেছি। আমার সহকর্মী কর্মকর্তা কর্মচারীসহ সব ছাত্রছাত্রী বিশেষ করে ছাত্রলীগের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। কারণ তারা দায়িত্ব নিয়ে এ কাজটি করেছে। এখন সুষ্ঠুভাবে বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনার জন্য সবাই আমাকে সর্বোচ্চ সহযোগিতা করবেন।’

সাংবাদিকদের ব্রিফিং শেষে জরুরি সিন্ডিকেট সভায় অংশ নেন উপাচার্য। যেখানে অনির্দিষ্টকালের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

দুর্নীতির অভিযোগে জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের বিরুদ্ধে বেশ কিছুদিন ধরেই আন্দোলন চলছে।

আজ মঙ্গলবারসহ (৫ নভেম্বর) টানা ১১ দিন প্রশাসনিক ভবন অবরোধ এবং দশম দিনের মতো সর্বাত্মক ধর্মঘট পালন করেন আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। ফলে কার্যালয়ে যেতে পারছিলেন না উপাচার্য।

হামলা চলাকালে উপাচার্যের বাসভবনের নিরাপত্তায় নিয়োজিত পুলিশকে নীরব ভূমিকা পালন করতে দেখা যায়।

Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Checkpost Media
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!