বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:৪৫ পূর্বাহ্ন

নোটিশ:
দৈনিক চেকপোস্ট পত্রিকায় সারাদেশে জেলা উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ দেয়া হচ্ছে। সাংবাদিকতায় আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন। ছবিসহ জীবন বৃত্তান্ত ই-মেইল করুন-checkpost2015@gmail.com এ। প্রয়োজনে-০১৯৩১-৪৬১৩৬৪ নম্বরে কল করুন।
‘ঐকমত্য হয়েই সাদকে মনোনয়ন দিয়েছি’

‘ঐকমত্য হয়েই সাদকে মনোনয়ন দিয়েছি’

চেকপোস্ট ডেস্ক : জাতীয় পার্টিতে কোনো বিভেদ নেই দাবি করে পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, আমরা সবাই ঐকমত্য হয়ে রংপুর-৩ উপ-নির্বাচনে রাহগীর আল মাহী এরশাদকে (সাদ এরশাদ) মনোনয়ন দিয়েছি। এখানে কেন্দ্রীয় ও তৃণমূল নেতাকর্মীরা একত্র হয়ে দলের স্বার্থে কাজ করবে এবং আমরা জয়ী হব ইনশাআল্লাহ।

সোমবার রাজধানীর বনানীতে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা নির্ধারণ এবং রংপুরের উপনির্বাচনে প্রার্থী মনোনয়ন নিয়ে মতভেদ দেখা দেয় জাতীয় পার্টিতে। জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে শুন্য হওয়া রংপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচনে দলের মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলেন এরশাদের ছেলে সাদ এরশাদ ও ভাতিজা মকবুল শাহরিয়ার আসিফ। পরে দলের সিনিয়র নেতাদের মধ্যে এ নিয়ে সমঝোতা হয়।

এ বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে জিএম কাদের বলেন, ‌আমরা যারা কমিটিতে ছিলাম, তারা বসে আলোচনা করেছি এবং তার বাইরেও কয়েকজন সিনিয়র নেতার সঙ্গে আমরা খোলামেলা আলোচনা করেছি। সার্বিক বিবেচনায়, সবকিছু হিসাব করে আমরা তাকে (সাদ) নমিশেন দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান আশা প্রকাশ করেন, দল যেহেতু মনোনয়ন দিয়েছে, নেতাকর্মীরা তার হয়েই কাজ করবে। আসনটি জাতীয় পার্টির হাতেই থাকবে।

এই উপনির্বাচনে এরশাদের ছেলে রাহগীর আল মাহী সাদের জয় নিশ্চিত করতে জোটসঙ্গী আওয়ামী লীগের সঙ্গে আলোচনা হচ্ছে বলেও ইঙ্গিত দেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান।

জিএম কাদের বলেন, সমঝোতা হবে কিনা এই মুহূর্তে আমরা বলতে পারছি না। হবে না এটাও বলতে পারছি না। এ বিষয়ে আমরা কথা বলার চেষ্টা করছি, আলাপ আলোচনা কিছুটা করেছি। আমরা এখনও কোনো ঐকমত্যে আসতে পারিনি।

‘আমরা কিছু বিষয়ে আলোচনা করেছি, উনারাও বিষয়টি বিবেচনা করবেন বলেছেন। তবে শেষ পর্যন্ত হয়ত আর দুই চারদিন পর… প্রত্যাহারের দিনের মধ্যেই আমরা নিশ্চিত হব’ -যোগ করেন জিএম কাদের।

দল ঐক্যবদ্ধ আছে জানিয়ে কাদের বলেন, যেকোনো মূল্যে দলকে ঐক্যবদ্ধ রাখতে চেয়েছি। সামনে দলের একটি ভবিষ্যৎ আছে। তাই আমাদের ব্যক্তিগত কার কী ক্ষতি হলো বা লাভ হলো এটা কোনো ব্যাপার না। আমরা দলের স্বার্থটা এখানে বড়।

পার্টির চেয়ারম্যান বলেন, বাংলাদেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে জাতীয় পার্টি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে যাচ্ছে। সাধারণ মানুষের প্রত্যাশা পূরণে কাজ করছে। আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে পার্টিকে শক্তিশালী ও ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য কাজ করে যাচ্ছি এবং দল ঐক্যবদ্ধভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। সংবাদ সম্মেলনে জি এম কাদেরের সঙ্গে ছিলেন সাবেক প্রতিমন্ত্রী পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম এমপি, ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী এমপি, আদেলুর রহমান ও সোলায়মান শেঠ।

Print Friendly, PDF & Email

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Checkpost Media
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!